আপিল শেষ আজ, শুনানি আগামীকাল হতে

আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের সম্ভাব্য প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ের পর প্রার্থিতা ফিরে পেতে আপিলের হিড়িক পড়েছে। গত দুদিনে মোট ৩১৮টি আপিল করেছেন প্রার্থীরা। আজ বুধবার আপিলের শেষ দিন। সব মিলিয়ে আপিলের সংখ্যা সাড়ে চারশর বেশি হতে পারে বলে ধারণা করছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

আগামীকাল বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হচ্ছে আপিলের শুনানি। চলবে শনিবার পর্যন্ত।

এদিকে বার্তা সংস্থা ইউএনবি জানিয়েছে, ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য বগুড়া-৬ ও ৭ এবং ফেনী-১ আসনে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জমা দেওয়া মনোনয়নপত্র বাতিল করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত চ্যালেঞ্জ করে এখনো কোনো আপিল করা হয়নি।

আপিল গ্রহণের প্রথম দিন সোমবার কমিশনের অভ্যর্থনা কক্ষে আপিল নেওয়া হয়। নির্বাচন কমিশন আপিল গ্রহণ করতে মঙ্গলবার দেশের আট বিভাগের জন্য কমিশন সচিবালয় প্রাঙ্গণে আটটি বুথ স্থাপন করে।

আবেদন শুনানির পর ইসির সিদ্ধান্ত মনমতো না হলে সংশ্লিষ্ট প্রার্থী বিষয়টির প্রতিকার চেয়ে হাইকোর্টে যেতে পারবেন।

নির্বাচনের তফসিল অনুযায়ী প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিন ৯ ডিসেম্বর। আর প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের মধ্যে নির্বাচনী প্রতীক বরাদ্দ করা হবে ১০ ডিসেম্বর। প্রতীক পাওয়ার পর প্রার্থীরা তাঁদের নির্বাচনী প্রচার শুরু করতে পারবেন।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ৩০০ সংসদীয় আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য জমা দেওয়া তিন হাজার ৬৫ মনোনয়নপত্রের মধ্যে ৭৮৬টি বাতিল করেছেন রিটার্নিং কর্মকর্তারা। গত রোববার যাচাই-বাছাই শেষে এসব মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়।

নির্বাচন কমিশন সচিবালয় সূত্র অনুযায়ী, সারা দেশের ৬৬ জন রিটার্নিং কর্মকর্তা যাচাই-বাছাই শেষে দুই হাজার ২৭৯টি মনোনয়নপত্র বৈধ এবং ৭৮৬টি মনোনয়নপত্র অবৈধ ঘোষণা করেন। সারা দেশে ৭৮৬টি মনোনয়নপত্র বাতিল হলেও ৩৫টি আসনে কোনো প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল হয়নি। ২৬৫টি আসনে এক বা একাধিক প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল হয়েছে। সর্বোচ্চ বাতিল হয়েছে কুড়িগ্রাম-৪ আসনে। এখানে ১৩টি মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। জমা পড়েছিল ২৩টি মনোনয়নপত্র।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Skip to toolbar