গাইবান্ধায় কিশোরীর স্তন কেটে দিল যুবক

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় নৃশংসতার শিকার হয়েছে এক কিশোরী। ঘুমন্ত অবস্থায় তার একটি স্তন কেটে দিয়েছে আশিক নামে এক যুবক। সোমবার রাতে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার হরিরামপুর ইউনিয়নের রামপুরা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

গুরুতর অবস্থায় ওই কিশোরীকে গাইবান্ধা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসকরা কিশোরীর বুকে অস্ত্রোপচার করে। চিকিৎসকরা কিশোরীর বুকে ৩২ সেলাই করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন।

এ ঘটনার পর পরই আশিককে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তাকে গ্রেপ্তারের আগে ভুক্তভোগীর বাবা গোবিন্দগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

কিশোরীর পরিবারের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, রামপুরা গ্রামের বাসিন্দা ফজলুল হকের ছেলে আশিক বেশ কিছুদিন ধরে ওই কিশোরীকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে আসছিল। গত কয়েকদিন ধরে তাকে বিভিন্ন কায়দায় উত্ত্যক্তও করছিল সে। দুই-তিনদিন আগে মেয়েটিকে আবারও প্রেমের প্রস্তাব দেয় আশিক।

কিন্তু ওই কিশোরী প্রেমে সাড়া না দেয়ায় ক্ষুব্ধ হয় আশিক। গতকাল সোমবার রাত ৮টার দিকে সে মেয়েটির বাড়ি যায়। এ সময় ওই কিশোরীকে ঘুমন্ত অবস্থায় দেখতে পেয়ে ধারালো চাকু দিয়ে তার একটি স্তন কেটে ফেলে। মেয়েটির চিৎকারে পরিবার ও প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে আশিক পালিয়ে যায়।

গোবিন্দগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম মেহেদী হাসান বলেন, ‘মেয়েটির বাবা ঘটনার পরপরই আশিকের বিরুদ্ধে মামলা করেন। পরে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। মেয়েটি এখনো হাসপাতালে ভর্তি আছে। তার বয়ান নেয়ার পর পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Skip to toolbar